কাশ্মীরে জঙ্গিদের সঙ্গে কেন্দ্রীয় নিরাপত্তা বাহিনীর রাতভোর চললো গুলির লড়াই

Indian Soldier

শ্রীনগরঃ কাশ্মীরে রাতভোর চলল গুলির লড়াই। কাশ্মীর উপত্যকায় ব্যাপক ভাবে জঙ্গি দমন করার অভিযান শুরু করেছে কেন্দ্রীয় বাহিনী। পুলিশ কাশ্মীরের শোপিয়ানে কিলুরা গ্রামে সংঘর্ষে ৪ জঙ্গিকে খতম করেছে। এখনও চলছে এনকাউন্টার এখনও চলছে। আর অন্যদিকে, পুলওয়ামাতে জঙ্গিদের সাথে কেন্দ্রীয় নিরাপত্তা বাহিনীর রাতভর চলছে গুলির লড়াই।

আরও পড়ুনঃ পুলওয়ামা হামলাঃ জঙ্গিদের মিলিত সংগঠন

কেন্দ্রীয় নিরাপত্তা বাহিনী এখনও পর্যন্ত ৩ জন জঙ্গিকে খতম করেছে এবং এক জঙ্গি আত্মসমর্পণ করেছে। তবে এই রকম ঘটনা কাশ্মীরের ইতিহাসে নজরবিহীন বললেই চলে।

পুলিশ জানিয়েছে যে, বিজেপি-এর পঞ্চায়েত সদস্যকে অপহরণ ও খুনের সঙ্গে যুক্ত ছিল এর মধ্যে দুই জঙ্গি। কাশ্মীরের আইজিরি বিজয় কুমারের কথায়, পঞ্চায়েত সদস্যকে খুনের সঙ্গে যুক্ত জঙ্গিকে আমরা শেষ করেছি। সেনা, পুলিশ ও সিআরপিএফ যৌথ ভাবে শুরু করেছে অপারেশন। একজন জঙ্গি আত্মসমর্পণ করেছে। আমরা তাঁকে হেফাজতে নিয়েছি জেরার জন্য।

আরও পড়ুনঃ আপনার শারীরিক ফিটনেস ঠিক আছে কতটা, বলে দেবে এই Amazon-এর Halo ব্যান্ড, জেনে নিন এর দাম

রাস্তায় পার্টি লকডাউনের মধ্যেই,গ্রেফতার ৩ সেনাকর্মী

Arrested Army

মুসৌরিঃ মাঝরাস্তায় হইহুল্লোড় লকডাউনের মধ্যেই। এমনই অভিযোগে তিন সেনা জওয়ানকে গ্রেফতার করলো পুলিশ। ঘটনাটি উত্তরাখণ্ডের দেহরাদুনে ঘটেছে। একটি সর্বভারতীয় হিন্দি দৈনিকের খবর অনুযায়ী, এই ঘটনাটি ঘটেছে দেহরাদুন থেকে মুসৌরিগামী রাস্তার উপরে কিমাদি এলাকায়।

পুলিশ জানিয়েছে, তিন সেনা কর্মী, রাকেশ কুমার, গনেশ সিং ও সায়ন ঘোষ ফাঁকা রাস্তার উপরেই পার্টি করছিলেন। ঠিক সেই সময় ওখান থেকে পঙ্কজ পাটওয়ালা নামে এক স্থানীয় বাসিন্দা যাচ্ছিলেন। ওই সেনা জওয়ানরা তাঁকে মারধর করে বলে অভিযোগ বাঁচাতে গেলে তাঁর বন্ধুদেরও মারধর করে তিন সেনা জওয়ান।

আরও পড়ুনঃ কোভ্যাক্সিন-এর হিউম্যান ট্রায়াল শুরু, কোথায় হচ্ছে এই ট্রায়াল!

এলাকার বাসিন্দারা এসে পুলিশে খবর দেয়। পুলিশ তিন সেনা জওয়ানকে গ্রেফতার করেন। ওই তিন সেনা জওয়ানকে আদালতে তোলা হবে।

আরও পড়ুনঃ ৩ মাস ধরে লাখ লাখ করোনা টিকা তৈরী হবে, জানালো সেরাম ইন্সটিটিউট

কাশ্মীরের সোপিয়ানে ৩ জঙ্গিকে খতম করলো সেনা জওয়ান

Indian Army

শ্রীনগরঃ আজ ভোরে জম্মু-কাশ্মীরের সোপিয়ানের আমসিপোড়া গ্রামে অভিযান চালিয়ে ৩ জঙ্গিকে খতম করলো সেনা ও নিরাপত্তা বাহিনী। সেনার ৬২ রাষ্ট্রীয় রাইফেলস ছাড়াও এতে অংশ নেয় সিআরপিএফ ও কাশ্মীর পুলিশ। এখনও সংঘর্ষ চলছে।

আমসিপোড়া গ্রামে কয়েকজন জঙ্গি লুকিয়ে আছে, এই খবর পেয়ে সেনা ও নিরাপত্তা বাহিনী শেষরাতে গ্রামটিকে ঘিরে ফেলে। এই নিয়ে কাশ্মীর উপত্যকায় গত ২৪ ঘণ্টায় দু’বার সংঘর্ষ হল। শুক্রবার ভোরে কুলগ্রাম জেলার নাগনাদ চিমার এলাকায় ৩ জৈশ ই মহম্মদ জঙ্গি নিহত হয়।

আরও পড়ুনঃ ৩৭৫ জন স্বেচ্ছাসেবীর উপর শুরু হল কোভ্যাক্সিনের ক্লিনিক্যাল ট্রায়াল

এই জঙ্গিদের মধ্যে একজন ছিল জৈশের শীর্ষস্থানীয় কমান্ডার আইইডি বিশেষজ্ঞ, তবে এই সংঘর্ষে ৩ সেনা জওয়ানও জখম হয়েছেন।

আরও পড়ুনঃ এবার হাসপাতালে ভর্তি হলেন ঐশ্বর্য রাই বচ্চন ও তাঁর কন্যা আরাধ্যা

পিছু হঠল চিনা বাহিনী, তাদের গতিবিধির উপর নজর রাখছে ভারতীয় সেনা

india-China border Conflict

লাদাখঃ অবশেষে গালওয়ান উপত্যকায় চিনা বাহিনী পিছু হটল। একই সাথে পিছু হটেছে ভারতীয় সেনাও। কয়েকদিন আগেই দুই বাহিনীর মধ্যে কম্যান্ডার স্তরের বৈঠকে সিমান্তে উত্তেজনা প্রশমনে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছিল।

সেনা সূত্রকে উদৃধৃত করে এএনআই সংবাদ সংস্থা দাবি করেছে, গালওয়ান নদী সংলগ্ন যে এলাকাগুলি থেকে পিছিয়ে আসার বিষয়ে দু’পক্ষ একমত হয়েছিল, চিনা সেনা সেখান থেকে তাদের তাঁবু, বাহিনী এবং যানবাহন সরিয়ে নিয়েছে। তারা প্রায় ১ থেকে ২ কিলোমিটার পিছিয়ে গিয়েছে। ভারতীয় সেনাও বৈঠকের শর্ত মেনে বেশ কিছুটা পিছিয়ে এসেছে বলে খবর।

আরও পড়ুনঃ রাশিয়াকে পিছনে ফেলে পৃথিবীর তৃতীয় করোনা আক্রান্ত দেশ ভারত

তবে গালওয়ান নদী উপত্যকার গভীরে কয়েকটি জায়গায় চিনা বাহিনীর এখনও সশস্ত্র যানবাহন রয়েছে। ভারতীয় সেনা সূত্রে জানা গিয়েছে গোটা পরিস্থিতির উপর তারা নজর রাখছে।

আরও পড়ুনঃ রাজ্যে এক দিনেই করোনা আক্রান্ত প্রায় ৯০০! মৃত ২১

৩ জঙ্গি নিকেশ, পুলিশকর্মী ও ১ জওয়ান আহত, এনকাউন্টার এখনও জারি

Indian Army

শ্রীনগরঃ নিরাপত্তা বাহিনীর হাতে ৩ জঙ্গি নিহত। এখনও তাদের পরিচয় জানা যায়নি। এখনও দক্ষিণ কাশ্মীরের ত্রালে জারি রয়েছে গুলির লড়াই। ভারতীয় সেনার ৪২ রাষ্ট্রীয় রাইফেলস (Indian Army’s 42 Rashtriya Rifles), সিআরপিএফ Central Police Reserve Force (CRPF) এবং এই অভিযান চলছে রাজ্য পুলিশের নেতৃত্বে। জঙ্গিরা যে লুকিয়ে আছে, এই খবর পাওয়া মাত্র শুরু হয় চিরুণি তল্লাশি। বাহিনির অভিযান শুরু হয় ত্রালের ছিওয়া উল্লার জুড়ে। গোটা এলাকা ঘিরে ফেলা হয়েছে।

এনকাউন্টার শুরু হয় বৃহস্পতিবার সন্ধ্যে থেকে। জঙ্গিরা বাহিনীর গুলির প্রতুত্তর করে। গুলির লড়াই চলে দীর্ঘক্ষণ ধরে। একটি বাড়ি ভেঙ্গে গেছে সম্পুর্ণভাবে।

আরও পড়ুনঃ এবার বেসরকারি সংস্থাও বানাতে পারবে মহাকাশ অভিযানের রকেট

প্রথমে পুলিশ পক্ষ থেকে জানানো হয় ট্যুইট করে, এক অজ্ঞাত পরিচয়ের জঙ্গি নিহত হয়েছে, এখনও গুলির লড়াই জারি রয়েছে। এরপর জানা গেছে নিহত জঙ্গির সংখ্যা বেড়ে হয়েছে তিন।

আরও পড়ুনঃ রাজ্যে বাড়ছে লকডাউনের মেয়াদ, সর্বদল বৈঠকের পর ঘোষণা মুখ্যমন্ত্রীর

জঙ্গিদের পাশাপাশি আহত হয়েছেন এক সেনা জওয়ান ও এক পুলিশকর্মী। গুলির লড়াই এখনও জারি আছে। এদিকে চিন সিমান্তে উত্তেজনা রয়েছে, অন্যদিকে কাশ্মীরে জঙ্গিদের সঙ্গে লড়াই চলছে সেনাদের।

১০ এর বদলা ১৫, ভারতের হাত থেকে মুক্তি পেল ১৫ চিনা আর্মির সদস্য

Indian Army

গালওয়ানে দুই মেজরসহ ১০ জন ভারতীয় জওয়ানকে আটক করেছিল চিনা পিপিলস লিবারেশন আর্মি। শুক্রবার বেশ লম্বা কথপকথনের পর তাদেরকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছিল। কিন্তু দিন পার হতেই এরই উত্তরে ভারতীয় সেনার তরফ থেকে এল এক বড় খবর। শোনা যাচ্ছে, ভারতীয় সেনা চিনা সেনাদেরও হেফাজতে রেখেছিল। তবে সংখ্যাটা ভারতীয় সেনার তুলনায় অনেকটাই বেশি। ভারতের ১০ জন সেনার পরিবর্তে চিনের ১৫ জন সেনাকে আটক করে ভারতীয় জওয়ান। এদের মধ্যে ছিল এক সেনা আধিকারিক। কথাবার্তার পর চিনা সেনাদের মুক্ত করা হয়।

লাদাখে ভারত ও চিনা সেনার সংঘর্ষে ভারতীয় সেনার ২০ জন জওয়ানের মৃত্যু হয়। অনেকের মতে, চিনা সেনাদের ৪০ জনের অধিক সেনা মারাযায় সেই সংঘর্ষে। তবে এই বিষয় নিয়ে কোনো উক্তি করেনি বেজিং। বিগত ৪৫ বছরে ভারত-চিন সংঘর্ষের ঘটনা প্রথমবার ঘটেছে।

এই ঘটনার পর থেকেই বিভিন্ন ভাবে কূটনৈতিক স্তরে আলোচনে চলে। দেশের প্রতিরক্ষা মন্ত্রী রাজনাথ সিং তিন বাহিনীর সাথে কথা বলেন। আলোচনা চলে লাদাঘের বর্তমান পরিস্থিতি নিয়ে।

ভারত-চীন সীমান্তে সংঘর্ষ, নিহত কর্নেল ও দুই সেনা

india-China border Conflict

নয়াদিল্লিঃ সীমান্ত নিয়ে ভারত ও চীনের মধ্যে স্নায়ুযুদ্ধ কথা বারবারই সামনে আসছিল। এবার সরাসরি সংঘর্ষ হল চীন ও ভারতের মধ্যে। ভারতীয় সেনা এই তথ্য প্রকাশ করলো। সেনার বিবৃতিতে জানানো হয়েছে, সোমবার লাদাখে ভারত ও চীনের সংঘর্ষে দুই সেনা ও এক কর্নেলের মৃত্যু হয়।

আরও জানানো হয়েছে, সোমবার রাতেও ভারত ও চীন সেনার সংঘর্ষ হয় মুখোমুখি। সেনার তরফে বৈঠক আয়োজন করা হয়েছে। এই পরিস্থিতি-কে নিয়ন্ত্রণ কিভাবে করা যায় তা নিয়ে আলোচনা হচ্ছে। বৈঠকে রয়েছেন, প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিং, বিদেশমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর, চিফ অফ দ্যা আর্মি স্টাফ বিপিন রাওয়াত।

আরও পড়ুনঃ কলকাতায় পেট্রোলের দাম পেরোল ৭৮ টাকা, মাথায় হাত শহরবাসীর

এপ্রিল মাস থেকেই লাদাখ সীমান্তে স্নায়ুযুদ্ধ চলছে। ভারত ও চীন দু’পক্ষই দফায় দফায় সেনা মজুত করে সীমান্তে। পেট্রোলিং চলতে থাকে। দিন কয়েক আগে প্যাংগং অঞ্চলে একদফা রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষ চলে। তবে তাতে মৃত্যুর কোনো খবর পাওয়া যাইনি। এই প্রথম চীনের সাথে সংঘর্ষে ভারতীয় সেনার মৃত্যু হল।

আরও পড়ুনঃ তিনটি নদীর জল বন্ধ করতে চলেছে ভারত, বঞ্চিত হতে চলেছে পাকিস্তান

কাশ্মীরের কুলগামে ফের জঙ্গিদের তাণ্ডব, সেনার সাথে গুলির লড়াই

Indian Army

কুলগ্রামঃ করোনার জেরে গোটা দেশ যেখানে নাজেহাল। কাশ্মীরে সেখানে জঙ্গির তাণ্ডব। দক্ষিণ কাশ্মীরের কুলগাম জেলায় বৃহস্পতিবার ভোররাতে জঙ্গিদের সাথে সংঘর্ষ শুরু হয় যৌথ বাহিনীর।

আরও পড়ুনঃ আলিপুর পুলিশ ক্যান্টিনে মিলল কর্মীর মৃতদেহ, চলছে পুলিশি তদন্ত

কুলগামের যমরাচ গ্রামে এনকাউন্টার চলে। সুত্রের খবর অনুযায়ী, ভারতীয় সেনার ৩৪ রাষ্ট্রীয় রাইফেল, সিআরপিএফ এবং যমরাচ গ্রামে অভিযান চালাচ্ছে জম্মু-কাশ্মীর পুলিশের একটি টিম। আর একদিকে ভারতীয় গোয়েন্দা বিভাগের থেকে জানানো হয়েছে, কাশ্মীরের সীমান্ত পার করে প্রায় ১৫০ জন জঙ্গি আমাদের দেশে প্রবেশের চেষ্টা করছে।

আরও পড়ুনঃ বাড়ি ফেরার পথে পরিযায়ী শ্রমিকদের প্রাণ কাড়লো দুর্ঘটনা