করোনায় আক্রান্ত এক বাংলাদেশি চিকিৎসার জন্য সাঁতরে নদী পার করলো

অসমঃ গোটা বিশ্ব এখন করোনার আতঙ্কে ভীত। ভাইরাস ছড়িয়ে পড়ার হাত থেকে বাঁচতে দেশ জুড়ে চলছে লকডাউন। ফলে প্রতিটি মানুষ এখন গৃহবন্দী হয়ে পড়েছে। এই অবস্থাতেও দেশে করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা লাফিয়ে বেড়ে চলেছে। বলা যায় ভারতের মতো জনঘনত্বপূর্ন দেশ বেশ কিছুটা দমিয়ে রাখতে পেরেছে করোনার প্রভাবকে। অন্যান্ন দেশের তুলনায় মৃত্যু হারও বেশ কম। আর সেই খবরের উপর বিশ্বাস রেখে এক বাংলাদেশি যুবক প্রানের ঝুঁকি নিয়ে নদী সাঁতরে পার করে ভারতে চলে এসেছে।

আরও পড়ুনঃ দেখা দিল করোনার নতুন উপসর্গ, ডাক্তারদের নজর এখন পায়ের দিকে

জানা গিয়েছে, সম্প্রতি বাংলাদেশের এই যুবক কুশিয়ারি নদী সাঁতরে পার করে ভারতের অসমের রাজ্যের সীমাতে প্রবেশ করেন। সেখানে নিকটবর্তী গ্রামে পৌঁছে জানায় যে সে করোনায় আক্রান্ত। তাকে বাঁচানোর জন্য আর্তনাদ করতে থাকে গ্রামবাসীর কাছে। সেই পরিস্থিতিতে স্থানীয় মানুষ ভয় পেয়ে যান এবং সেই স্থানে বিএসএফ গিয়ে পৌঁছায়। পরে বাংলাদেশি সেনার হাতে সেই যুবককে তুলে দেয় ভারতীয় বাহিনী।

জানা গিয়েছে সাঁতরে আসা যুবকের নাম আব্দুল হক। সে বাংলাদেশের সুনামগঞ্জ জেলার বাসিন্দা। রবিবার সকালে সাতটার দিকে ভারত সীমান্তে প্রবেশ করে ওই যুবক। সেই মুহুর্তেই তাকে বাংলাদেশের সেনার হাতে তুলে দেওয়া হয়।

আরও পড়ুনঃ করোনা ভ্যাকসিনের উৎপাদন শুরু হতে চলেছে শিগগিরি

Leave a Comment